July 9, 2020, 7:40 pm

News Headline :
ভোলায় সাপের কামড়ে এক নারীর মৃত্যু সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে রায়গঞ্জ উপজেলা মডেল প্রেস ক্লাব উদ্বোধন এই তোমার পৃথিবী! ———– সাম্য র‌্যাব-১ গাজীপুর ক্যাম্পের অভিযানে রাজধানী গাবতলী এলাকা হতে অপহৃত ভিকটিমকে ১২ ঘন্টা পর মুমূর্ষ অবস্থায় উদ্ধার আশুলিয়ায় অবৈধ গ্যাস বিস্ফোরণে ৩ জনের মৃত্যু; ইউপি মেম্বার সহ ৭ জনের বিরুদ্ধে মামলা ম্যাজিস্ট্রেটের বিয়ের সংবাদে স্ত্রীর স্বীকৃতি দাবি তিন নারীর! সাভারের হেমায়েতপুর এলাকায় শ্রমিকের রহস্যজনক মৃত্যু টঙ্গীতে রহস্যজনক কারণে স্ত্রীর হাতে স্বামী খুন গাজীপুর মহানগরীর কাশিমপুর হতে ০১(এক) জন মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার চতুর্থ বারে করোনা পজিটিভ ব্রাজিল প্রেসিডেন্ট বলসোনারো
আমির খান #মিটু আন্দোলনটাই দুর্বল করে দিলেন: তনুশ্রী

আমির খান #মিটু আন্দোলনটাই দুর্বল করে দিলেন: তনুশ্রী

Spread the love

কেন #মিটু অভিযুক্তর সঙ্গে কাজ করছেন? প্রশ্ন তুলে আমির খানকে কটাক্ষ করলেন তনুশ্রী দত্ত। এমনকি #মিটু অভিযুক্তর সঙ্গে কাজ করে আমির যে গত এক বছর ধরে চলা আন্দোলনটাকেই আরো দুর্বল করে দিলেন এমনটাও বলেছেন তনুশ্রী।

২০১৮ সালে বহুল সমালোচিত প্রজেক্ট গুলশন কুমারের বায়োপিক ‘মোগল’ থেকে অক্টোবর মাসে বেরিয়ে গিয়েছিলেন আমির খান। কারণ, সেই ছবির পরিচালক সুভাষ কাপুর #মিটু অভিযুক্ত। তবে এবার নানা টালবাহানার পর ফের সেই ছবির কাজে ফিরেছেন আমির খান। আর সেখানেই আপত্তি তুলেছেন তনুশ্রী দত্ত। কেন আমির নিজের সিদ্ধান্তে অনড় থাকেননি, সেই প্রশ্নও তোলেন এই অভিনেত্রী।

কয়েকদিন আগেই এক সাক্ষাৎকারে আমির খান জানিয়েছিলেন, সুভাষ কাপুরের দোষ এখনো প্রমাণিত হয়নি। মামলা এখনো চলছে। কিন্তু তিনি যখন জানতে পারেন, ‘মোগল’ এর কাজ থেকে বের হওয়ার পর সুভাষ আর কোথাও কাজ পাননি, হারিয়েছেন বহু কাজের প্রস্তাব, আমির অপরাধ বোধে ভুগতে থাকেন। এমনকি, ইন্ডিয়ান ফিল্ম অ্যান্ড টেলিভিশন ডিরেক্টরস অ্যাসোসিয়েশনের তরফে মে মাসে আমির একটি চিঠি পান, তাতেও সুভাষের সঙ্গে তার কাজ না করার সিদ্ধান্ত নিয়ে আরেকবার পর্যালোচনা করার প্রস্তাব জানানো হয় অভিনেতাকে। সেই জন্যই ‘মোগল’ এ ফিরছেন আমির খান। গুলশন কুমারের বায়োপিকে ভূষণ কুমারের সঙ্গে সহ-প্রযোজনা করবেন আমির এবং তার স্ত্রী কিরণও।

আমিরের এই নতুন সিদ্ধান্তেই বেজায় চটেছেন তনুশ্রী দত্ত। যার হাত ধরে বলিউডে প্রথমবারের জন্য #মিটু আন্দোলন শুরু হয়েছিল। তনুশ্রী বলেন, ‘নিজের সিদ্ধান্ত থেকে সরে এসে আমির এই #মিটু মুভমেন্টটাকেই দুর্বল করে দিলেন। আমির যদি জীবিকা এবং আয় নিয়ে স্বচ্ছভাবে ভাবতেন তাহলে হয়তো নির্যাতিতা মেয়েটিকে কাজের সুযোগ দিতেন।’

পাশাপাশি তনুশ্রী প্রশ্ন তোলেন, নির্যাতিতা মেয়েটিকেও হয়তো নানা সামাজিক চাপের সম্মুখীন হতে হয়েছে। সমবেদনা কি শুধুই পুরুষদেরই প্রাপ্য? কোনও একজন মহিলা যদি হেনস্তার শিকার হন, ট্রমার মধ্যে দিয়ে দিন কাটান, তখনো বলিউড ইন্ডাস্ট্রির একজনও কি তার চিন্তায় বিনিদ্র রজনী কাটিয়েছেন? যদি আপনি অপরাধবোধে ভুগে সুভাষ কাপুরকে কাজে নেওয়ার কথা ভাবতে পারেন, তাহলে তিনি ওই মহিলাকে কেন কাজ দেওয়ার কথা ভাবলেন না?’

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © 2018 jonotarbangla.com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com