ArabicBengaliEnglishHindi

অপ্রকাশিত ভালোবাসা-মোঃ ইসমাঈল


প্রকাশের সময় : জুলাই ১৪, ২০২২, ৯:১৪ অপরাহ্ন / ২৮২
অপ্রকাশিত ভালোবাসা-মোঃ ইসমাঈল

অপ্রকাশিত ভালোবাসা
মোঃ ইসমাঈল

তোমার অগোচরে আমি চেয়ে থাকতাম তোমার পানে–
আমি অবলোকন করতাম তোমার দৃষ্টি, কথা এবং ভঙ্গি,
মাঝে মাঝে আমাদের দৃষ্টি চোখাচোখি হয়ে পড়তো,
পরক্ষণেই আমি পরিবর্তন করে ফেলতাম আমার চাহনি।

আমি বসে বসে উপভোগ করতাম,
তোমার ছেলেমানুষি দুষ্টুমি গুলো।
আর মন নিজেই হেসে ফেলতো আর বলতো এই মেয়ের বয়স হয়েছে ঠিকই কিন্তু বয়সের ছাপ ঘায়ে মাখেনি।

আমি ঠিক প্রতিদিনই সময় করে গিয়ে সেই গন্তব্যে উপস্থিত হতাম আর আমার এই বিসর্জনের মূখ্য উদ্দেশ্য ই ছিলা কেবল তুমি,
রুটিন মাফিক এক নজর একটু দেখা।
তোমার মুখের হাসিই থাকতো আমার সুখের কারণ।

আমার কেমন যেন তোমার প্রতি খুব ভালো লাগা কাজ করতো–
এই দেখা অদেখার মাঝে কখন যে মন লেনাদেনা করে ফেলেছে আমি জানতাম না,
তোমাকে নিয়েই সৃষ্টি হলো এই মনে প্রণয়,
তখন এই মন তোমাকে কাছ থেকে একটু ছোঁয়ার জন্য ভীষণ মিস করতো, ভীষনভাবে তোমায় ভালোবেসে ফেলেছিলো এই মন।

তুমি হয়তো জানো না যে,
আমি লুকিয়ে তোমার একটি ফটো তুলেছিলাম এবং যখনই তোমার অনুপস্থিতি অনুভব করতাম, তখনই দেখতাম ফটোটাকে।
তোমাকে তখন কল্পনায় স্থান দিতাম আমার হৃদয়ও মাজারে, আঁকিতাম মনের সুখে আলপনা, আর বুনতাম হাজারো স্বপ্ন।

এতো প্রণয়, এতো ভালোবাসা সৃষ্টি হলো আমার মনে
কিন্তু তুমি তা জানতে না,
নাকি তুমিও আমার মতো আমাকে খুব মিস করতে,
আমার অজান্তেই আমাকে ভালোবাসতে।
সেটুকুও আমার অজানা–

একদিন আমি একটি লাল টুকটুকে গোলাপ কিনেছিলাম তোমায় দেব বলে সাথে একটি ডায়েরিও,
তবে তোমার সাথে কথা বলার কেন যেন, সাহসটুকু হয়নি আমার।
আমি ফিরে এসেছি হাতে করে বয়ে নিয়ে সেই গোলাপ আর সেই ডায়েরিটা।
রেখে দিয়েছি খুব যতন করে আমার ভালোবাসার প্রামান্যচিত্র হিসেবে–
যখনই তোমার কথা এ মন, বিন্দু পরিমাণ স্মরণ করে তখনই খোলা হয় ডায়েরির পাতা, পড়া হয় কয়েক পৃষ্ঠা।
গোলাপটাও না গন্ধহীন হয়ে পড়েছে,
তবে, তাতে আমার কি–আমার মনে তো তোমার জন্য বিন্দুমাত্রও ভালোবাসা হ্রাস হয়নি।

আমি ভালোবাসি, ভেসে যাবো–অনন্ত জনম ধরে,
তবে কখনোই হয়নি প্রকাশ তোমারই তরে।
আমি তো দিবা স্বপ্নদর্শী লোক, দেখি স্বপ্ন আর রাখি আশা
থাকুক না অমর হয়ে আমার অপ্রকাশিত ভালোবাসা।