ArabicBengaliEnglishHindi

ভারতের হাতে,পাকিস্তানের বিশ্বরেকর্ড


প্রকাশের সময় : জানুয়ারী ২৩, ২০২২, ৮:৩০ অপরাহ্ন / ৩৯৩
ভারতের হাতে,পাকিস্তানের বিশ্বরেকর্ড

স্পোর্টস ডেস্ক ->>
বিশ্ব ক্রিকেটে চির প্রতিদ্বন্দ্বী দুই দেশ ভারত ও পাকিস্তান। কিন্তু আজ (রোববার) হয়তো ভারতের জয়ই চাইবে পাকিস্তান। কেননা ভারতের জয়-পরাজয়ের ওপরেই নির্ভর করছে তাদের একটি বিশ্বরেকর্ড। দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে শেষ ম্যাচটি ভারত জিতলে টিকে থাকবে সেটি।

পাকিস্তানের বিশ্বরেকর্ড অক্ষত রাখতে কেপটাউনের নিউল্যান্ডসে ভারতের সামনে লক্ষ্য ২৮৮ রানের। সিরিজের শেষ ম্যাচে আগে ব্যাট করে স্বাগতিক দক্ষিণ আফ্রিকা অলআউট হয়েছে ২৮৭ রানে। হোয়াইটওয়াশ এড়ানোর মিশনে দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাট করতে নামবে ভারত।

ওয়ানডে ক্রিকেটে তিন বা তার বেশি ম্যাচের সিরিজে সবচেয়ে বেশি ২০টি হোয়াইটওয়াশ করার বিশ্বরেকর্ড রয়েছে পাকিস্তানের দখলে। তাদের ঠিক পরের নামটিই দক্ষিণ আফ্রিকার। এখন পর্যন্ত তিন বা ততোধিক ম্যাচের সিরিজে প্রতিপক্ষকে ১৯ বার হোয়াইটওয়াশ করেছে প্রোটিয়ারা।

ভারতের বিপক্ষে চলতি সিরিজে এরই মধ্যে দুই ম্যাচ জিতে রেখেছে দক্ষিণ আফ্রিকা। আজ শেষ ম্যাচটি জিতলেই ২০তম হোয়াইটওয়াশ করে পাকিস্তানের রেকর্ডে ভাগ বসাবে তারা। আর ভারত পাবে নিজেদের ইতিহাসে পঞ্চম হোয়াইটওয়াশের তেতো স্বাদ।

হোয়াইটওয়াশ এড়ানোর জন্য রীতিমতো রেকর্ডই গড়তে হবে লোকেশ রাহুলের ভারতীয় দলকে। কেপটাউনে ২৫৯ রানের বেশি তাড়া করে জেতার রেকর্ড নেই কোনো। আজ ২৮৮ রান করতে পারলে নতুন রেকর্ডই লিখবে ভারত, একইসঙ্গে অক্ষত রাখবে পাকিস্তানের বিশ্বরেকর্ড।

দক্ষিণ আফ্রিকাকে ২৮৭ রানের বড় সংগ্রহ এনে দেওয়ার মূল কারিগর উইকেটরক্ষক ব্যাটার কুইন্টন ডি ককের। ভারতের বিপক্ষে ষষ্ঠ ও ওয়ানডে ক্যারিয়ারের ১৭তম সেঞ্চুরিতে ১২ চার ও ২ ছয়ের মারে ১৩০ বলে ১২৪ রান করেছেন এ বাঁহাতি ব্যাটার।

দুর্দান্ত ফর্মে থাকা রসি ফন ডার ডুসেনের ব্যাট থেকে এসেছে ৫২ রান। এর বাইরে ডেভিড মিলার ৩৯, ডোয়াইন প্রিটোরিয়াস ২০ ও এইডেন মারক্রাম করেন ১৫ রান। শেষপর্যন্ত এক বল আগেই ২৮৭ রানে অলআউট হয় দক্ষিণ আফ্রিকা।